,


শিরোনাম:
«» পাংশায় মনির কসমেটিক্সের গোডাউনে অভিযান, ৫০ হাজার টাকা জরিমানা «» পাংশার সকল ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড ছাত্রলীগের কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা «» দুই পয়সার চুল কাটা এখন ৩০ টাকা তবুও সংসার চলে না- দৈনিক সকালের কণ্ঠ «» পাংশায় এলাকাবাসীর দুর্ভোগ লাঘবে এগিয়ে চলছে সড়ক নির্মাণ-দৈনিক সকালের কণ্ঠ «» পাংশায় ব্যাপক পাট উৎপাদন হয়েছে-দৈনিক সকালের কণ্ঠ «» পাংশা হাসপাতালের একমাত্র সড়কে রোগী ও স্বজনদের ভোগান্তি-দৈনিক সকালের কণ্ঠ «» পাংশায় কমছে পদ্মার পানি ভাঙন আতঙ্কে বন্যা কবলিত এলাকা «» দুশ্চিন্তায় পানিবন্দী প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা-দৈনিক সকালের কণ্ঠ «» পাংশায় তুচ্ছ ঘটনা কেন্দ্র করে জাসদ সভাপতির বসত বাড়ী ভাংচুরের অভিযোগ «» মাছপাড়ায় ট্রাইব্রেকারে ভাতিজা একাদশকে ২ গোলে হারিয়ে চাচা একাদশের জয়ী

পাংশার মৈশালা কর্মকারপাড়ায় মেয়রের নির্দেশনায় জলাবদ্ধতার নিরসন ॥ ধন্যবাদ এলাকাবাসীর

এস,কে পাল ॥


রাজবাড়ীর পাংশা পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ডের মৈশালা কর্মকারপাড়ায় বৃষ্টিতে সৃষ্ট জলাবদ্ধতা নিরসনে নির্দেশনা দিয়েছেন পৌর মেয়র মোঃ ওয়াজেদ আলী মাস্টার।

জানাগেছে মৈশালা কর্মকারপাড়ায় কয়েকটি পরিবার প্রায় একমাস যাবৎ বৃষ্টির পানিতে আটকে ছিল। বৃষ্টির পানি বের হতে না পারায় এ জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয় বলে জানান এলাকাবাসী। এ নিয়ে ওই এলাকাা একটি মহল পানি বের করতে না দেয়ার জন্য বাধা প্রদান করেন।

এলাকাবাসী কোন উপায় না দেখে পাংশা পৌরসভার মেয়র মোঃ ওয়াজেদ আলী মাস্টারকে অবহিত করলে মেয়র পানি বের করার উদ্যোগ গ্রহণ করেন।

শুক্রবার (০২ জুলাই) মেয়র ওয়াজেদ আলী মাস্টারের নির্দেশনায় এলাকাবাসী ও পৌরসভার পানি সরবরাহে নিয়োজিত কর্মচারীদের সহযোগিতায় মাটি কেটে পাইপ বসিয়ে পানি বের করার ব্যবস্থা করা হয়।

পাংশা পৌরসভার মেয়র এলাকাবাসীর সুবিধার কথা চিন্তা করে প্রায় একমাস যাবত বৃষ্টির পানিতে সৃষ্ট জলাবদ্ধতায় নিমজ্জিত থাকা পরিবারকে রক্ষা করতে এ উদ্যোগ গ্রহণ করায় এখন তাদের মুখে হাসি ফুটেছে।

এলাকাবাসী জানায়, বৃষ্টির পানি বের হতে না পারায় আমরা প্রায় একমাস ধরে পানিবন্দী ছিলাম। পাশর্^বর্তী জমির মালিকগণকে অনুরোধ করলে তারা তাদের জমির উপর দিয়ে পানি বের করতে বাধা প্রদান করেন। আমরা উপায় না পেয়ে পৌরসভার মেয়রের শরণাপন্ন হই। তিনি উদ্যোগ নিয়ে পানি বের করার ব্যবস্থা গ্রহণ করেন। আমরা এলাকাবাসী তাকে ধন্যবাদ জানায়। তিনি যেন প্রতিটি বিপদে আপদে আমাদের পাশে থেকে সহযোগিতা করতে পারেন সেজন্য তার সু-স্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করি।

তারা আরো বলেন, আমরা এ এলাকায় জন্মলগ্ন থেকে শান্তিতে বসবাস করে আসছি। আমরা হিন্দু-মুসলমান মিলেমিশে আছি। কিন্তু সম্প্রতি এই এলাকার একটি কুচক্রী মহল এই শান্তি নষ্ট করার জন্য পায়তারা করছে।

Print Friendly, PDF & Email
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ